Business is booming.

উপাচার্য ভবনে হামলা : গ্রেফতার ৪ জন রিমান্ডে

(প্রিয়.কম) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভিসি) ভবনে হামলা ও ভাঙচুরের ঘটনায় গ্রেফতার চারজনকে রিমান্ডে পাঠিয়েছেন আদালত। 

২৯ এপ্রিল, রবিবার তাদের রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। এর আগে গ্রেফতারকৃত চারজনকে সাতদিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে প্রেরণ করলে আদালত রাকিবকে চারদিন, আলীকে তিনদিন এবং মাসুদ ও সিয়ামকে দুইদিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

রবিবার দুপুরে রাজধানীর চানখারপুল এলাকা থেকে এই চারজনকে গ্রেফতার করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (দক্ষিণ) একটি দল। গ্রেফতারের পর তাদের কাছ থেকে ঘটনার সময় চুরি যাওয়া দুটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়েছে।

ঢাকা মহানগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (এসি) সুমন কান্তি চৌধুরী জানিয়েছেন, গ্রেফতারকৃতরা হলো- মো. রাকিবুল হাসান ওরফে রাকিব (২৬), মো. মাসুদ আলম ওরফে মাসুদ (২৫), মো. আলী হোসেন শেখ ওরফে আলী (২৮) ও আবু সাইদ ফজলে রাব্বী ওরফে সিয়াম (২০)।

এর আগে পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা গেছে গ্রেফতারকৃত চারজনের কেউই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র নয়। শুধু মাসুদ আলম ঢাকা আলীয়া মাদ্রাসার ছাত্র। অন্য তিনজন কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র নয়। এরমধ্যে গ্রেফতারকৃত রাকিবের নামে বরিশাল ও লক্ষ্মীপুরে পাঁচটি মামলা রয়েছে।

৮ এপ্রিল রাতে অজ্ঞাতনামা মুখোশধারী ও দুষ্কৃতিকারীরা হামলা চালিয়েছিল উপাচার্য ভবনে। এই ঘটনায় ১০ এপ্রিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনিয়র সিকিউরিটি অফিসার এস এম কামরুল আহ্সানের দায়ের করা মামলার পরিপ্রেক্ষিতে এই চারজনকে গ্রেফতার করা হয়।

শাহবাগ থানায় দায়ের করা ওই মামলার অভিযোগে বলা হয়েছে, ৮ এপ্রিল রাতে অজ্ঞাতনামা অনেক মুখোশধারী সন্ত্রাসী ও দুষ্কৃতিকারী হাতে লোহার রড, পাইপ, হাতুড়ি, লাঠি ইত্যাদি নিয়ে বেআইনিভাবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য ভবনের বাউন্ডারি ওয়াল টপকে এবং ভবনের ফটকের তালা ভেঙে ভবনের ভেতরে অনধিকার প্রবেশ করে, এরপর ভবনের মূল্যবান জিনিসপত্র, আসবাবপত্র, ফ্রিজ, টিভি, লাইট, কমোড ও বেসিন সহ অনেক মালামাল ভাঙচুর করে ক্ষতিসাধন করে এবং মূল্যবান সম্পদ লুটতরাজ করে।

এসব সন্ত্রাসী ওই ভবনে রক্ষিত দুটি গাড়ি পুড়িয়ে দেয় এবং আরও দুটি গাড়ি ভাঙচুর করে। একই সাথে ভিসির বাসভবনে রক্ষিত সিসিটিভি ক্যামেরাগুলো ভেঙে ফেলে এবং সিসিটিভি ক্যামেরার ডিভিআরগুলো আগুনে পুড়িয়ে নষ্ট করে ফেলে।

প্রিয় সংবাদ/কে এন দেয়া/রুহুল

Loading...
You might also like