Business is booming.

রিয়ালের মাঠে ‘গার্ড অব অনার’ নিয়ে নির্লিপ্ত বার্সা কোচ

৩৩ ম্যাচে ৮৩ পয়েন্ট নিয়ে লা লিগায় চলতি মৌসুমে সবার ওপরে রয়েছে বার্সেলোনা। শিরোপা নিশ্চিত করতে শেষ পাঁচ ম্যাচে দরকার মাত্র ১ পয়েন্ট। রোববার দেপোর্তিভো লা করুনার বিপক্ষে হার এড়াতে পারলেই শিরোপা নিশ্চিত হবে মেসিদের।

আগামী ৬ মে কাম্প নউয়ে রিয়াল মাদ্রিদের মুখোমুখি হবে বার্সেলোনা। জিনেদিন জিদান এরই মধ্যে জানিয়েছেন প্রথা অনুযায়ী ‘গার্ড অব অনার’ দেবে না রিয়াল মাদ্রিদ। তার কথা সমর্থন করেছেন রিয়াল অধিনায়ক সের্হিও রামোস। যদিও লা লিগায় কোনো ক্লাব আগেভাগে শিরোপা নিশ্চিত করলে লিগের বাকি ম্যাচগুলোয় তাদেরকে প্রতিপক্ষের ‘গার্ড অব অনার’ দেওয়ার রেওয়াজ আছে।

মৌসুমের শুরুতে ক্লাব বিশ্বকাপ জেতার পর রিয়াল মাদ্রিদকে ‘গার্ড অব অনার’ দিতে অস্বীকৃতি জানায় বার্সেলোনা। সে থেকেই চলছে এ নিয়ে বিতর্ক যা জোরালো হয়েছে রিয়াল মাদ্রিদের মাঠে মৌসুমের শেষ ক্লাসিকোকে ঘিরে।

দেপোর্তিভো লা করুনার বিপক্ষে ম্যাচের আগের দিন শনিবার সংবাদ সম্মেলনে এ প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের মুখোমুখি হন ভালভেরদে।

“অনেক মানুষ এই ‘গার্ড অব অনার’ নিয়ে কথা বলছে। আমরা যখন সান্তিয়াগো বের্নাবেউয়ে গিয়েছিলাম (মাদ্রিদ ক্লাব বিশ্বকাপ জয়ের পর) তখনও তারা এটা নিয়ে কথা বলেছে।”

“আমি মনে করি এটা এমন কিছু যা প্রতিটি দলের সিদ্ধান্ত। তবে ‘গার্ড অব অনার’ প্রতিপক্ষ খেলোয়াড়কে সম্মান দেখানোর উপায় হওয়ার কথা বলে আমি মনে করি।”

“এখন এটা করা একটু বেখাপ্পা কিছু- বিশেষ করে বার্সা ও মাদ্রিদের মধ্যে এবং এমন সব দল যাদের মধ্যে অনেক প্রতিদ্বন্দ্বিতা আছে।”

“এর পেছনে একটা অদ্ভুত অনুভূতি আছে। একটি দলকে সম্মান জানানোর জন্য ‘গার্ড অব অনার’ দেওয়ার চেয়ে এটা অন্যকে লজ্জা দেওয়ার একটা উপায়।”

“এটা (গার্ড অব অনার দেওয়া নিয়ে আলোচনা) আমাকে পাগল করে ফেলছে। দেখেন, আমরা কি এই বিষয়টা বাদ দিতে পারি না? এটা খুবই সামান্য কিছু। গার্ড অব অনার দেওয়া বা পাওয়া নিয়ে কিছু যায় আসে না।”

Loading...
You might also like